(adsbygoogle=window.adsbygoogle ।।{}).push({ google_ad_client:"ca-pub-2524552414847157", enable_page_level_ads: true }) (adsbygoogle=window.adsbygoogle ।।{}).push({ google_ad_client:"ca-pub-2524552414847157", enable_page_level_ads: true })
 

কিভাবে আপনার Predictable সময়ে পদ্ম-বীজ অঙ্কুর করবেন?


আপনি পদ্মের একটি ছোট পুকুরের জন্য হয়তো একটি পরিকল্পনা করেছেন, তাহলে, নীচের step অনুযায়ী পদ্ধতিগুলো just অনুসরণ করুন। নিকটবর্তী বাজারে বা ওয়েব স্টোর থেকে কিছু কমল বা পদ্মের বীজ সংগ্রহ করুন। পদ্মের বীজ একটি খুব কঠিন আবরণের দ্আবারা আচ্ছাদিত থাকে। আর, ঠিক এই কারণেই, কমল বা পদ্মের বীজ 2000 বছর পর্যন্ত সংরক্ষণ করা যেতে পারে। কিন্তু, আমরা তো আর 2000 বছর অপেক্ষা করতে পারি না!

আমরা বরং একটি ছোট্ট ও সহজ কৌশলের অনুসরণ করে এক সপ্তাহের মধ্যে এই কঠিন আবরণে ঢাকা পদ্মের বীজের অঙ্কুরণ করে নিতে পারি। আপনার হাতে একটি পদ্মের বীজ নিন এবং একটি উকো বা ফাইল বা এমারি কাগজ দিয়ে শক্ত আবরণটাকে ঘষে সরিয়ে দিন। ছবিতে যে বীজ দেখছেন, ওর ভেতরের দিকটা ঘষতে হবে, অর্থাৎ, যেদিকটা চাকতিতে লেগে রয়েছে, ঐ দিকটাই (Front) ঘষতে হবে।

এইবার, একটি কাচের গ্লাসে জল নিন এবং ঐ জলে আগের সেই ঘষে নেওয়া বীজ ফেলে দিন। কয়েক দিন অপেক্ষা করুন।

4 থেকে 5 দিন পর আপনি পদ্মের শিশু গাছ (চারা) বেরিয়ে আসতে দেখবেন। কয়েক দিন পরে, একটি বড় বা মাঝারি আকারের পাত্রে এটিকে ট্রন্সফার করে রাখুন। ব্যস। কাজ সম্পূর্ণ।

এবার আপনি পদ্মবীজ অঙ্কুরিত করতে পারার আনন্দে সামিল হতে পেরেছেন!!!

*******************************************************************************************


Recent Posts